Home / Golpo-Kotha / কিন্তু ওনি যা বললেন তা শুনে আমি

কিন্তু ওনি যা বললেন তা শুনে আমি

কিন্তু ওনি যা বললেন তা শুনে আমি,আরও দ্বিগুন অবাক হলাম। … -একটা মার্ডার করে চলে এসো।পার্মানেন্ট থেকে যেতে পারবে।(সিমি ম্যাম) … সিমি ম্যাম এর কথা শুনে দুইবার ছোটছোট কাশি দিলাম।তা দেখে সিমি ম্যাম এক গ্লাস পানি এগিয়ে দিলেন। পানি খাওয়ার পর সিমি ম্যাম এর দিকে তাকিয়ে রইলাম।ওনি এখন আবার সেই ফাইল নিয়ে বেস্ত হয়ে পরেছেন।কই ভাবলাম আমার সাথে একটু কথা বলবে আরও কত কি!আর এসব না করে ফাইল নিয়ে বসে আছেন।

কিরে এখানে বসে আছিস কেন?যা এখান থেকে?(হঠাৎ আবির বলে উঠলো) -কেন আপনার কোন সমস্যা? (এখানে পার্মানেন্ট থাকার উপায় পেয়ে গেছি ) -চোপ!পুলিশের সাথে গলা নামিয়ে কথা বল!(আবির) -রাখ তোর পুলিশ।(হাতে থাকা গ্লাসটা দিয়ে সোজা মাথা বরাবর জোরে আগাত করলাম) … গ্লাসটা ভেঙে গেল।আবিরের মাথা থেকে রক্ত ঝরছে।চারদিকে হৈ হুল্লোড় পরে গেল।সাভাবিক ভাবেই দারিয়ে রইলাম।সিমি ম্যাম কয়েকটা পুলিশ দিয়ে আবিরকে হসপিটালে পাঠিয়ে দিল।

কেন মারলি ওকে?(সিমি ম্যাম সাভাবিক গলায়) -এখানে থেকে যাবার জন্য।(আমিও সাভাবিক ভাবেই বললাম।) -ঠাসসস,ঠাসসস…(দুই গালে দুইটা থাপ্পড় বসিয়ে দিল।) …আমি ভাবতেই পারিনি সিমি ম্যাম এমনটা করতে পারবেন।চরটা সজোরেই দিয়েছে।গালে হাত দিয়ে দারিয়ে আছি।… -খুব সখ তোর জেলের ভাত খাবার তাই না!আয় তাহলে এদিকে। … সিমি ম্যাম আমার হাত ধরে টানতে টানতে সোজা কারাগারে ঢুকিয়ে দিল।

তালা লাগিয়ে দিয়ে নিজের চেয়ারে গিয়ে বসে পরল ।মনে হচ্ছে বেশ রেগে গেছে।এমনটা হয়ে যাবে তা ভাবতে পারিনি। দেয়ালে হেলান দিয়ে বসে আছি।সিমি ম্যাম এর টেবিলটা আমার কাছ থেকে স্পস্ট দেখা যায়।আমি সেদিকেই তাকিয়ে আছি। অনেক্ষণ ধরে দেখলাম সিমি ম্যাম চেয়ারে হেলান দিয়ে শুয়ে ছিল।হয়তো কিছু ভাবছিলো।কিছুক্ষণ পর আবার কারাগারের দরজা খুলে আমার পাশে আসলো। … -সবাই এখান থেকে পালাতে চায়,আর তুমি এখানে থাকতে চাও কেন?(সিমি ম্যাম তুমি করে বলছে,হয়তো রাগ কমেছে।) -এমনি,এখানে থাকলে কেমন লাগে এটাই জানতে?(মিথ্যা বললাম) -জানা হইছে? -কেন?

About admin

Check Also

জেনিয়ার সাথে কথা বলছিলো

জেনিয়ার সাথে কথা বলছিলো,নিচে হৈ-হুল্লোড় শুনো এই জেনিয়া লাইনটা একটু কাটো তো নিচে কি যেন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *